Skip to main content

দেহলিজ -৯ প্রকাশিত হলো ।

দেহলিজ -৯ প্রকাশিত হলো । দেওয়া হলো নতুন লিঙ্ক। প্রতিবারের মতোই এর প্রথম পাতা আপডেট করা হলো । দেহলিজের প্রথম পাতায় , সমস্ত সংখ্যার লিঙ্ক দেওয়া থাকে । যাতে, বাকি সংখ্যাগুলো খুঁজে পাওয়া যায় । 




আপনারা যারা অবগত, আবার জানাই, ইচ্ছে করে দেহলিজের ডোমেন নিয়েও আমরা ডোমেন বেসড URL প্রকাশ করি না , কারণ ডোমেন হারিয়ে গেলে আপনার লেখা লিংকগুলো হারিয়ে যায় । গুগল-ব্লগারের লিংক হারিয়ে যায় না । 


প্রথম পাতার দুটো লিংকই দেওয়া হলো । 

https://www.dehlij.com

https://dehlij.blogspot.com


দেহলিজ-৯ সংখ্যার হাইলাইট হলো, এটা একটা বিশেষ সংখ্যা । থিম বেসড । দিল্লির চিত্রকলা গোষ্ঠীর অনুপ্রেরণায় এই "ধর্মের সন্ত্রাস" নামক সংখ্যাটি করা হলো । এই উপমহাদেশের ধর্ম চরিত্র ও তাঁর নেগেটিভ সাইড এফেক্ট পরিলক্ষিত হচ্ছে জায়গায় জায়গায় । তার চর্চায় এগিয়ে গেলো দিল্লির বাংলা সাহিত্য সম্প্রদায় ও দেহলিজের সঙ্গে খুব কাছ থেকে জড়িয়ে থাকা লেখক-গোষ্ঠী । প্রত্যেকজন লেখক কে ধন্যবাদ দেহলিজের সঙ্গে জুড়ে থাকার জন্য । দেহলিজের সহসম্পাদক মোনালি রায় বিশেষ চেষ্টাচরিত্র করে সংখ্যাটির মান বাড়িয়েছেন । 


বিশেষ ধন্যবাদ, দিল্লির নাট্যকার , চিত্রকর ও কবি শ্রী তড়িৎ মিত্র । তার আঁকা ছবি দিয়ে সাজানো হলো "ধর্মের সন্ত্রাস" । উপমহাদেশে বিভিন্ন স্থানে ধর্মের নামে আগুনে পোড়ানো হলো মানুষ, ঘরবাড়ি । তার প্রতিবাদে ঝলসে উঠলো রং ও তুলি । এই সমস্তই লেখক,চিত্রকর ও পাঠকদের জন্য আটকে রাখা হলো দেহলিজের পাতায় পাতায় । 


এই সংখ্যার সমস্ত লেখকদের লেখা পড়ার জন্য আপনি এইখানে ক্লিক করবেন । 


https://dehlij9.blogspot.com


আপনাদের মতামত ও জুড়ে থাকা আমাদের পাথেয় । যে কোন মুহূর্তেই আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করা যায় । ফেসবুকে 'দেহলিজ' এর গ্রুপ করা হয়েছে । যারা হোয়াটস এপে যুক্ত হতে চান , পত্রিকায় লিঙ্ক দেওয়া আছে । 


Comments

Popular posts from this blog

দেহলিজ-৭ প্রকাশিত হলো

সুধী দেহলিজ-৭ প্রকাশিত হলো https://dehlij7.blogspot.com/     বহু প্রতীক্ষার পর, ফির`সে দেহলিজ । প্রথমেই কৃতজ্ঞতা জানাই কবি ও লেখক বন্ধুদের । তারা ভরসা রেখেছেন, কঠিন সময়ে যোগাযোগ রেখেছেন, ফোনে কথা বলেছেন । এই করোনা কালে, বেঁচে থাকাই হলো একটা গল্প, লড়াই করে যাওয়াই একমাত্র কবিতা । দিল্লি এনসিআর এর কবি বন্ধুরা আমার সঙ্গে ছিলেন, তারা আমার হয়ে দেহলিজের লেখা নিয়েছেন, নিজেরা এডিট করেছেন, সংযোজনা করেছেন ।  দিল্লির এই রুক্ষতার আবহেও এত সুন্দর একটা সাহিত্য উপস্থাপনা আমাদের দিয়েছেন, আমি সেই দেহলিজ সহযোগীদের কাছে ধন্যবাদ জানাই । শুধু দিল্লি নয়, ঢাকা, কলকাতা, হাওড়া, মেদিনীপুর, শিলিগুড়ি, বহরমপুর, হাওড়া, বাঁশদ্রোনী থেকেও আমাদের সঙ্গে থেকেছেন, ধন্যবাদ জানাই সেইসব লেখক ও কবিদের ।   দেহলিজের এই সংখ্যায় কিছু নতুন কন্টেন্ট নিয়ে কাজ করা হলো । কবিতার সঙ্গে মেশানো হলো ছবি, ভাষ্কর্ষ ও ক্যামেরা ক্লিক । দৃশ্যময়তা ও টেক্সট একে অপরের জায়গা শেয়ার করা । নেওয়া হলো কবিতা নিয়ে আলোচনা । কবিরা কি ভাবছেন ? চিত্রকরেরা কি ভাবছেন এই ২০২১ এ দাঁড়িয়ে । যুক্ত করা হলো আন্তর্জাতিক কবি ও চিন্তকদের । যারা কবিতা, গদ্য ও বিশ্বসাহিত্য

আসছে দেহলিজের সংখ্যা - ৬

 প্রকাশ পাচ্ছে দেহলিজ-৬ করোনাকালের শুরুতে প্রকাশ পেয়েছিলো, দেহলিজ-৫ ; তেমন উচ্চবাচ্য হয়নি, ইচ্ছে করেই করা হয়নি, মানুষের কাছে বেঁচে থাকাই ছিলো একটা কবিতা । লকডাউন শুরু হলো, মানুষ আটকা পড়লো ঘরে । শুরু হলো ঘরে বসে লাইভ টেলিকাস্ট । দেহলিজে - নতুন গ্রুপ একটিভিটি বেড়ে উঠেছে । তার একটা খসড়া এই রকমঃ  প্রিয় কবি বন্ধুগণ   আজকের এই বিশেষ অবসরে, আমার কিছু যত্নে লালিত প্রস্তাব রাখার অভিপ্রায়ে , এই পোস্টের অবতারণা  । দেহলিজ পত্রিকার সম্পর্কে এই  বিষয়টি একটা অভিনব ও যুগান্তকারী বলেও  মনে হয় আমার । দিল্লির যানজট, লকড ডাউন,  অফিস ব্যস্ততা, বাংলা ভূখণ্ডের দূরত্বে ভৌগলিক অবস্থান , উৎসাহী কবির স্বল্পতা বাংলা চর্চার ক্ষেত্রে একটা চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিয়েছে । তদুপরি ভাষার বিবিধতা , জাঠ হরিয়ানভি ঠাট,  পাঞ্জাবী কালচার আগ্রাসন করে নিয়েছে অনেক কিছু । বর্তমান দেশব্যাবস্থা, রাজনৈতিক সমীকরণ সাহিত্য দিল্লি-বক্ষে সাহিত্য প্রয়াসের প্রতিকুল সততই । এই রকম চ্যালেঞ্জ নেওয়াটাও একটি সাহসী পদক্ষেপ , আমাদের একত্রিত প্রয়াসে  আমরা বিভিন্ন সাহিত্য আড্ডা ও অনলাইন পত্রিকার মাধ্যমে তবুও তুলে ধরেছি । দেহলিজের এই অগ্রগতি আমাদের একটা আশ

দেহলিজ-৮ প্রকাশিত হলো ।

দেহলিজ-৮ প্রকাশিত হলো https://dehlij8.blogspot.com লেখক বন্ধুদের প্রতি এই কারণেও ধন্যবাদ এই যে তারা সারাবছর ধরে দেহলিজের অপেক্ষাও করে আছেন । দেহলিজ যাতে বন্ধ না হয়ে যায়, সেই উপলক্ষে নানান ক্রিয়েটিভ কাজে সাহায্য করেছেন । কবি দিলীপ ফৌজদার, কবি ও চিত্রকর মোনালী রায়, গদ্যকার ঝুমা চ্যাটার্জী, কবি মৌমিতা মিত্র ও দেহলিজের সঙ্গে জুড়ে থাকা সমস্ত কবি ও লেখক - আমার পাশে থেকে পত্রিকার প্রকাশের কাজে সাহায্য করেছেন । তাদের কাছে আমি কৃতজ্ঞ   আমি আশা করি, দেহলিজের লেখকেরাও  তাদের পাঠক-সংখ্যা বৃদ্ধি হবে ও পাঠকগণও প্রিয় লেখকদের দেহলিজের পাতায় দেখে খুশী হবেন । আপনারা সবাই নিশ্চয় এর বর্তমান ও আগামী নিয়ে সুচিন্তিত মতামত দেবেন । আলোচনা চলুক । লকড আউট দিনে নিরাশ হবেন না । দেহলিজ পড়ুন,  আপনার মূল্যবান মতামত অবশ্যই জানাবেন ।   ক্লিক করুন । শেয়ার করুন । পড়ুন ও পড়াবেন । দেহলিজ - ৮ সূচীপত্র সম্পাদকীয় সম্পাদকীয় নজফ-ভাবনাগড়